SS TV live
SS News
wb_sunny

এই মুহুর্তে

মেঘনা গ্রুপের আনসারের আক্রমনে গ্রামবাসী আহতের অভিযোগ

 



সোনারগাঁও সংবাদদাতাঃ 


নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে মেঘনা গ্রুপের দখলকৃত সরকারী জায়গা (রাস্তা) ছেড়ে দেওয়ার জন্য মেঘনা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালকে নোটিশ দেয় সরকার।   দখলকৃত জায়গায় মসজিদ ও ঈদগাহের জায়গা পুনরুদ্ধারে এলাকাবাসীর উদ্যোগে রাস্তা মেরামতের কাজ অব্যাহত রাখায় গ্রামবাসীর উপর মেঘনা গ্রুপের আনসাররা আক্রমণ চালিয়েছে বলে জানা যায়।


সোমবার (৫ এপ্রিল)  সকাল ১০ টায় উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের মেঘনা শিল্পনগরীর ঝাউচর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। মেঘনা গ্রুপের আনসারদের আক্রমণে ৩জন গ্রামবাসী গুরুতর আহত হয়েছেন। এদের কে স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এদের মধ্যে ১জন শিশু ও আহত হয়েছে।


এলাকাবাসীর পক্ষে এনায়েত উল্লাহ মোল্লা জানান, দীর্ঘদিন যাবত এই এলাকার মানুষের মসজিদ, মাদ্রাসা ও কবরস্থানে যাতায়াতের রাস্তা দখল করে আছে মেঘনা গ্রুপ। আমরা বিভিন্ন সরকারি দপ্তরে বিষয়টি জানানোর পর সরকার মেঘনা গ্রুপকে ২২ মার্চ ২০২১ এলাকাবাসীর চলাচলের সরকারী জায়গা ছেড়ে দিতে নোটিশ দেয়। সেই মোতাবেক এলাকাবাসী গত এক সপ্তাহ যাবত সেই জায়গায় রাস্তা মেরামতের কাজ করতেছে। কিন্তু আজ হঠাৎ করেই তাদের আনসাররা আমাদের উপর আক্রমণ করে বসে। আমাদের নিরীহ গ্রামবাসীর উপর গুলি ছুড়ে। এতে আমাদের ৩ জন লোক আহত হয়।


সোনারগাঁ থানা তদন্ত ওসি খন্দকার তবিদুর রহমান জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত পূর্বক আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে৷


উল্লেখ্য যে, সোনারগাঁয়ের উপজেলার চর লাউয়াদী মৌজার আরএস ১নং খাস খতিয়ানের আরএস ১২৬০ নং দাগে খাল শ্রেনীর ০.৯৭০০ একর ভূমি এবং চররমজান সোনাউল্লাহ মৌজার আরএস ১নং খাসখতিয়ানের আর এস ২১৭নং দাগের হালট ০.৭৭০০ একর ভূমিতে অবৈধভাবে বালু ভরাট করে পাকা দেয়াল নির্মাণ করেছে মেঘনা গ্রুপ। এতে বর্ণিত স্থানে অবস্থিত করবস্থান, মসজিদ, ঈদগাঁহ ও ঝাউচর মাদ্রাসায় বিভিন্ন গ্রামের লোকজনের যাতায়াতের রাস্তা বন্ধ হয়ে গেছে।


বর্ণিত জায়গা দিয়ে গ্রামের লোকজনের কবরস্থান, মসজিদ, ঈদগাঁহ ও ঝাউচর মাদ্রাসায় যাতায়াতের জন্য উম্মক্ত রাখতে মেঘনা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালকে নোটিশ দিয়েছেন সোনারগাঁ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) গোলাম মুস্তাফা মুন্না।


উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে মধ্যবর্তি সময়ে মেঘনা গ্রুপ রাস্তায় দেয়াল তৈরী ও টিন সেড স্থাপন ও নেটের বেড়া দিয়ে রাস্তাটি বন্ধ করে দেয়।


গত ১৫ মার্চ সোনারগাঁ উপজেলা চত্বরে সোনারগাঁওয়ের ১০ গ্রামের জনগন মানবন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়। মানববন্ধন শেষে সোনারগাঁও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে এলাকাবাসীর পক্ষে এনায়েত উল্লাহ মোল্লা একটি স্মারকপিপি দেন।

Tags

সাবসক্রাইব করুন!

সবার আগে নিউজ পেতে সাবসক্রাইব করুন!

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন