SS TV live
SS News
wb_sunny

Breaking News

ফেসবুক লাইভে আওয়ামীলীগ নেতা কালামের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়েছে আহবায়ক কমিটি।



সোনারগাঁও সময়ঃ  নারায়ণগঞ্জ-৩ সোনারগাঁ আসনের সংসদ সদস্য ও জাতীয় পার্টির যুগ্ম মহাসচিব লিয়াকত হোসেন খোকার দেয়া আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটিকে সরকার কর্তৃক প্রদত্ত কেএন ৯৫ মাস্ক দেওয়ায় আওয়ামীলীগ নেতা মাহফুজুর রহমান কালামের ফেইসবুক লাইভে হেয় করে বক্তব্য দেয়ায় প্রতিবাদ জানিয়েছেন সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটি।

গত ১৫ জুলাই সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান কালাম তার ব্যক্তিগত ফেইসবুক আইডি থেকে লাইভে আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটিকে উদ্দেশ্য করে অমার্জিত ভাষায় বক্তব্য দেন। এতে করে সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটির সুনাম ক্ষুন্ন হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটির আহবায়ক অ্যাডভোকেট সামসুল ইসলাম ভূঁইয়া ও যুগ্ম আহবায়ক ইঞ্জিনিয়ার মাসুদুর রহমান মাসুমের যৌথ স্বাক্ষরিত এক প্রতিবাদ পাঠান আহবায়ক কমিটি।
প্রতিবাদে আহবায়ক কমিটি উল্লেখ করেন, গত ১৫ জুলাই সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান কালাম তার ব্যক্তিগত ফেইসবুক লাইভে এসে আওয়ামীলীগের আহবায়ক কমিটিকে উদ্দেশ্য করে বক্তব্য দেন। আওয়ামীলীগকে হেয় প্রতিপন্ন ও তাচ্ছিল্য করে বক্তব্য রাখেন মাহফুজুর রহমান কালাম। এতে করে  দলীয় নেতাকর্মীদের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। 
মাহফুজুর রহমান কালামের কাছ থেকে এমন দায়িত্ব-জ্ঞানহীন বক্তব্য আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা আশা করেননি বলে উল্লেখ করা হয়। বৈশ্বিক মহামারি কোভিড-১৯ এ সকল পর্যায়ে মানুষ যখন দিশেহারা তখন দলীয়  নেতাকর্মীরা আপনাকে খূঁজে পাননি। মানুষের পাশে দাড়াননি। রাজনীতি কি নিজের ক্ষমতায় অধিষ্টিত হওয়া বা নিজের আখের গুছিয়ে অট্টালিকা তৈরি করা?

আহবায়ক কমিটি প্রতিবাদে আরো উল্লেখ করেন, দীর্ঘদিন বর্তমান সাংসদের চাটুকারিতা করছেন নিজের স্বার্থে। ২০১৮ সালে সংসদ নির্বাচনে বর্তমান সাংসদের সাথে বিভিন্ন  সভা সমাবেশ“ লাঙ্গলই নৌকা” বলে বক্তব্য রেখেছেন! ২০১৯ সালে উপজেলা নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে বর্তমান সাংসদের সমর্থনে নির্বাচন করে তৃতীয় বারের মতো পরাজিত হয়েছেন। তখন আপনি আওয়ামীলীগকে জাতীয় পার্টির  কোন টিমে পরিণত করেছেন?

অপরদিকে অ্যাডভোকেট সামসুল ইসলাম ভূঁইয়ার নেতৃত্বে উপজেলা, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধভাবে ওই সময়ে উপজেলা নির্বাচনে নৌকার বিজয় ছিনিয়ে আনেন। পরবর্তীতে আপনাকে নৌকার বিপক্ষে নির্বাচন করায় শান্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহনের সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়। যার প্রেক্ষিতে দলীয় সিদ্ধান্ত ও শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকে অব্যাহতি প্রদান করা হয়। 
প্রতিবাদে আরো জানানো হয়, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সভায় জেলা কমিটির সকল সদস্যদের মতামতের ভিত্তিতে জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের যৌথ স্বাক্ষরে সোনারগাঁ উপজেলায় আহবায়ক কমিটির অনুমোদন দেওয়া হয়। যা পরবর্তীতে কেন্দ্র দ্বারা স্বীকৃত।
২০১৪ সালে উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থীর বিপক্ষে বাংলাদেশের আলোচিত সেভেন মার্ডারের কারিগর বর্তমানে ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্ত আসামী নূর হোসেনকে সোনারগাঁ এনে ৩০টি গাড়ির বহর নিয়ে বিভিন্ন অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ইউপি চেয়ারম্যান, সদস্য ও দলীয় নেতাকর্মীদের থ্রেড করে হত্যার হুমকি দিয়েছেন।ওই সময়ে আপনার সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের জন্য আওয়ামীলীগের দলীয় প্রার্থী পরাজিত হয়। বিএনপির প্রার্থী জয়ী হয়।
 
প্রতিবাদে আরো জানানো হয়, সংসদ সদস্যের দেওয়া মাস্ক ও নারায়ণগঞ্জ জেলা কয়েদিদের তৈরি মাস্ক  সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগ প্রতিটি ১৫ টাকা করে কিনে এক সাথে প্রত্যেক ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায় নেতাকর্মীদের মধ্যে বিতরণ করা হয়। এছাড়াও জাতীয় পার্টিতে যোগদানকারী দুজন আওয়ামীলীগের কেউ নন। বর্তমানে সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা আহবায়ক কমিটির নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ। কর্মীদের বিভ্রান্ত করার জন্য ভূল ব্যাখ্যা দেওয়ার কোন সুযোগ নেই। 

সোনারগাঁ উপজেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে মাহফুজুর রহমান কালামের ফেইসবুক লাইভে দেওয়া বক্তব্যের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন আহবায়ক কমিটি। ভবিষ্যতে এ ধরনের অসৌজন্যমূলক ও অপ্রাসঙ্গিক বক্তব্য এবং আওয়ামীলীগকে জনসম্মুখে হেয় প্রতিপন্ন করা থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ করা হয়।

Tags

সাবসক্রাইব করুন!

সবার আগে নিউজ পেতে সাবসক্রাইব করুন!

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন