SS TV live
youtube
wb_sunny

এই মুহুর্তে

শ্রমিকের ঘাটতি নেই বললেন কৃষিমন্ত্রী ডঃ মোঃ আব্দুর রাজ্জাক।


পল্লব নেত্রকোনা বিশেষ প্রতিনিধি:

নেত্রকোনা জেলার হাওর অঞ্চল খালিয়াজুরী উপজেলা মেন্দিপুর ইউনিয়নের বোয়ালী হাওর, জগন্নাথপুর হাওর ও রসূলপুর হাওরে বোরোধান কাঁটা পরিদর্শন করেন ... কৃষি মন্ত্রী ড,মোহাম্মদ আব্দুর রাজ্জাক, সমাজ কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী মোঃ আশরাফ আলী খান খসরু, নেত্রকোনা -৩ ( কেন্দুয়া - আটপাড়া)নির্বাচনী এলাকার সাংসদ অসীম কুমার উকিল, নেত্রকোনা - ১( দুর্গাপুর - কমলা কান্দা)নির্বাচনী এলাকার সাংসদ মানু মজুমদার, কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব, মোঃনাসিরুজ্জামান,কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড,মোঃআব্দুল মুঈন,বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড,মোঃ শাহ জাহান কবীর,কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, ময়মনসিংহ অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক নিখিল চন্দ্র সেন,নেত্রকোণা জেলা প্রশাসক ড,মঈনুল ইসলাম, জেলা পুলিশ সুপার, মোঃআকবর আলী মুন্সি, খালিয়াজুরী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান গোলাম কিবরিয়া জব্বার, উপজেলা নির্বাহী অফিসার এএইচএম আরিফুল ইসলাম ও কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মোঃহাবিবুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

তারপর কৃষিমন্ত্রী বলেন ,,,হাওরে শ্রমিক সংকট নেই, স্বাস্থ্যবিধি মেনেই বিভিন্ন জেলা থেকে শ্রমিক আসছে।হাওরে করোনা ভাইরাস মোকাবেলা ও স্বাস্থ্যবিধি নিষেধ অনুসরণ করেই বিভিন্ন জেলা থেকে প্রচুর শ্রমিক আসছে। আরও বলেন,,,

হাওরের কৃষকদের ধান কাঁটার উৎসাহ, কৃষি ভর্তুকি, সরকারি ভাবে ধান সংগ্রহ ও কৃষি যন্ত্রপাতি সহজে সরবরাহের কথা উল্লেখ করে কৃষি মন্ত্রী বলেন, কৃষি কাজ সম্মানের কাজ,এ পেশায় জড়িত কৃষকেরা সমাজে মর্যাদাবান। হাওরের কৃষক অনেক পরিশ্রমী, রোদে পুড়ে বৃষ্টিতে ভিজে ফসল ফলায়।কৃষকের কথা চিন্তা করে সরকার কৃষি যন্ত্রপাতি কিনার জন্য কৃষককে ৭০ ভাগ ভর্তুকি দিয়েছে।
কৃষকের উৎপাদিত ধানের ন্যাযমূল্য পাবে, সরকারি ভাবে ধান সংগ্রহের সময়ে কৃষক যাবে হয়রানির শিকার না হয় সেদিকে সংশ্লিষ্ট সকলকে লক্ষ্য রাখার আহবান জানান।

পরে বিভিন্ন হাওরে ধান কাঁটা পরিদর্শনের সময় কৃষিমন্ত্রী ড, মোঃআব্দুর রাজ্জাক ধান কাঁটার শ্রমিকদের মাঝে লুঙ্গি, গামছা, সাবান ও মাস্ক বিতরণ করেন।।

Tags

সাবসক্রাইব করুন!

সবার আগে নিউজ পেতে সাবসক্রাইব করুন!

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন