সোনারগাঁয়ে অষ্টম শ্রেনীর ছাত্রীর বাল্য বিবাহ বন্ধ করলেন এসিল্যান্ড নাজমুল হুসেইন।

সোনারগাঁয়ের নোয়াগাঁও ইউনিয়নের পরমেশ্বরদী এলাকায় মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রীর বাল্য বিবাহ বন্ধ করেছেন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. নাজমুল হুসেইন। এসময় তিনি বাল্য বিবাহ আইনে মেয়ের অভিভাবক (বড় চাচা) কে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন।
উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) নাজমুল হুসেইন জানান, শুক্রবার উপজেলার পারশ্বেরদী এলাকায় জাহের আলীর মেয়ে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী মিথিলা আক্তারের বাল্য বিবাহের কথা জানতে পেরে আমি ভ্রাম্যমাণ আদালত নিয়ে অভিযান চালিয়ে তার বাল্য বিবাহ বন্ধ করেছি। এসময় বাল্য বিবাহ আইন অনুযায়ী মেয়ের অভিভাবক (বড় চাচা) কে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।
এ প্রসঙ্গে এলাকাবাসীর অভিমত, মো. নাজমুল হুসেইন সোনারগাঁয়ের এসিল্যান্ড হিসেবে যোগদানের পর থেকেই ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অপরাধ দমনে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। প্রায় প্রতিদিনই তাকে উপজেলার কোথাও না কোথাও অপরাধ দমনে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালাতে দেখা যায়। শুক্রবার তিনি পরমেশ্বরদী এলাকায় একটি বাল্য বিবাহ বন্ধ করেছেন। এজন্য এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে তাকে অভিনন্দন জানাই। এছাড়া তিনি বিভিন্ন সময় ঔষধের দোকানগুলোতে অভিযান চালান। এ কারণে ঔষধ ব্যবসায়ীরা এখন ভেজাল ও নিম্নমানের ঔষধ রাখতে ভয় পায়।
তবে সচেতন মহলের দাবি, সোনারগাঁয়ে ডা. রাজ দত্তের মত আরো অনেক ডাক্তার রোগীদের অনর্থক টেস্ট প্রদানের মাধ্যমে দীর্ঘদিন যাবত ব্যাপক কমিশন বানিজ্য করে আসছে বলে রোগীদের অভিযোগ রয়েছে। তাই ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এসব ডাক্তারদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানান সচেতন মহল।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

[blogger]

MKRdezign

যোগাযোগের ফর্ম

নাম

ইমেল *

বার্তা *

Blogger দ্বারা পরিচালিত.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget